খুব কঠীন কী?

ক-রো-না
খুব ছোট একটি শব্দ, কিন্ত ভয়াবহ তার পরিনাম।
তাই কী?

তার চেয়েও ভয়াবহ হলো :
“আর কতদিন এ ভাবে ঘরবন্দী থাকবো আমরা?”

“এই তোদের এলাকায় কেউ কোভিড পজিটিভ এসছে?”

“বাবা, তুমি কবে বাড়িতে ফিরবে ডিউটি থেকে?”

“বাবু, খাবার খাচ্ছিস তো ঠিক করে? খেয়াল রাখিস নিজের”
এই রকমেরই বহু গল্প লুকিয়ে আছে প্রতিটি ঘরে।
এই রকমের কিছু স্নেহানুভূতি জড়িত ভাবনা রয়েছে কাছের মানুষ দের।

আচ্ছা, এই কঠিন মহামারীর সময়ে শরীর কে কি করে সুস্থ রাখবো সেটা তো আমাদের সবার জানা আছে- হাত ধোওয়া, পরিস্কার থাকা, মাস্ক পরে বাইরে যাওয়া, ইত্যাদি..
কিন্তু আমাদের মন কে এই কঠিন পরিস্থিতির প্রভাব থেকে রেহাই দিতে হবে, তা জানা আছে কী?

তাই এই কঠিন সময়ে নিজের মন কেও করোনা আতঙ্ক থেকে মুক্ত করা দরকার।
হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার ফলে অস্থিরতা বোধ; কাছের মানুষ যারা ফ্রন্ট লাইনে লড়াই করছে, তাদের এক ঝলক পাওয়ার উতকন্ঠা;
এই সব কিছুর সঙ্গে মোকাবিলা করার জন‍্য মন কে অবিচলিত রাখতেই হবে।
এবার প্রশ্ন হচ্ছে তা রাখবেন কী করে?
আমাদের দৈনন্দিন কাজকর্মের পাশাপাশি নিজের ভিতরে লুকিয়ে থাকা সৃষ্টিশীলতার মধ্যে দিয়ে এক নতুন সত্তার সন্ধানে লেগে পড়া
যাতে আমরা আগামী যেকনো কঠিন পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্যে মানসিক ভাবে প্রস্তত থাকি।

Create your website at WordPress.com
Get started